সেন্টমার্টিন এখনো করোনামুক্ত 

সেন্টমার্টিন এখনো করোনামুক্ত 
সেন্টমার্টিন। ছবি: ইন্টারনেট।

পোস্টকার্ড ডেস্ক ।। 

কেউ এখনো করোনায় আক্রান্ত হননি দেশের সর্বদক্ষিণের প্রবাল দ্বীপ সেন্টমার্টিনে । এছাড়া পুরো কক্সবাজার জেলা জুড়ে করোনার সংক্রমণ বেড়েই চলেছে। জেলার সর্বাধিক আক্রান্ত এলাকা হলো কক্সবাজার পৌরসভা। পাশাপাশি উখিয়া ও টেকনাফে সংক্রমণ বেড়েই চলেছে।

আশ্চর্যের বিষয় হলো টেকনাফ উপজেলার অন্তর্গত সেন্টমার্টিন দ্বীপে ছোবল হানতে পারেনি করোনা। এই দ্বীপের লোকসংখ্যা প্রায় ১০ হাজার। সেখানকার মানুষের জীবনযাপনও স্বাভাবিক রয়েছে। খোলামেলা পরিবেশ ও বাইরের লোকজনের দ্বীপে যাতায়াত বন্ধ থাকায় এমন পরিস্থিতি বলে দাবি করেন সেন্ট মার্টিন পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মাসুদুর রহমান।

সিভিল সার্জনের কার্যালয় থেকে প্রাপ্ত তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, জেলার আট উপজেলা ও তিন পৌরসভায় ৩১ মে পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৯৮ হাজার ৮৯০ জনের (এর মধ্যে ৪৩ হাজার ৫৩০ জন রোহিঙ্গা)। তাঁদের মধ্যে করোনা শনাক্ত হয়েছে ১০ হাজার ৩৪৮ জনের (রোহিঙ্গা ১ হাজার ২১৭ জন)। করোনায় মারা গেছেন ১১২ জন (রোহিঙ্গা ১৬ জন)। রোহিঙ্গা ছাড়া জেলায় ৯ হাজার ১৩১ জন করোনা রোগীর মধ্যে কক্সবাজার পৌরসভাসহ সদর উপজেলায় ৪ হাজার ৫৪৫ জন, উখিয়ায় ১ হাজার ২৫০ জন, টেকনাফে ৯২৫ জন, চকরিয়ায় ৭৬৫, রামুতে ৬৩৭, মহেশখালীতে ৬২৫, পেকুয়ায় ২৭৪ ও কুতুবদিয়ায় ১১০ জন।

সেন্টমার্টিন ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান নুর আহমদ বলেন, জুন-জুলাই মাসে সাগর প্রচণ্ড উত্তাল থাকে। এ সময় টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌপথে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচলও বন্ধ থাকে। বাইরের লোকজনের দ্বীপে আসা–যাওয়া বন্ধ থাকলে দ্বীপের সুরক্ষা আরও নিশ্চিত হবে।