উত্তরপ্রদেশের অযোধ্যা নগরীতে বাবরি মসজিদ পুনর্নির্মাণ কাজ শুরু

উত্তরপ্রদেশের অযোধ্যা নগরীতে বাবরি মসজিদ পুনর্নির্মাণ কাজ শুরু
উত্তরপ্রদেশের অযোধ্যা নগরীতে বাবরি মসজিদ পুনর্নির্মাণ কাজ শুরু

অনিরুদ্ধ চৌধুরী, নয়াদিল্লি ।।

বাবরি মসজিদ পুনর্নির্মাণ শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে বৃক্ষরোপণ করে এ কাজের সূচনা করেছে উত্তরপ্রদেশের সুন্নি সেন্ট্রাল ওয়াকফ বোর্ড। প্রকল্পটির নাম ধান্নিপুর মসজিদ প্রকল্প।

অযোধ্যায় রামজন্মভূমির যেখানে রামমন্দির নির্মিত হচ্ছে তার থেকে ২৫ কিলোমিটার দূরে এই মসজিদ নির্মিত  হবে। ২০১৯ সালে সুপ্রিম কোর্ট অযোধ্যায় রামমন্দির নির্মাণের নির্দেশ দিয়ে অযোধ্যা জেলার মধ্যেই নতুন মসজিদ নির্মাণের জন্য পাঁচ একর জমি বরাদ্দ করে। তারপর সুন্নি বোর্ড মসজিদ ট্রাস্ট গঠন করে।

মসজিদ নির্মাণের দায়িত্বরত ইন্দো-ইসলামিক কালচারাল ফাউন্ডেশন মুখপাত্র আতাহার হোসেন বলেন, ‘মসজিদ নির্মাণের জন্য প্রজাতন্ত্র দিবস আদর্শ দিন এবং পাঁচ একর জমির ওপর গাছ রোপণ করে এর শুভারম্ভ হলো। এখানে মসজিদ ছাড়াও হবে হাসপাতাল, মিউজিয়াম, গ্রন্থাগার, গবেষণা কেন্দ্র এবং ইন্দো-ইসলামিক প্রকাশনা।’ সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ মতো জমিটি দেওয়া হয় সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডকে। ভারতের বিভিন্ন প্রদেশ থেকে গাছ এনে এখানে লাগানো হয়।

সুন্নি বোর্ডের সদস্যরা সকালে ভারতের জাতীয় পতাকা উত্তোলন করে গাছ লাগানো শুরু করেন। এই মসজিদের নকশা নির্মাণ করেছেন লক্ষৌ নগরীর প্রখ্যাত বাস্তুকার এস এম আখতার। গত ১৯ ডিসেম্বর এর নকশা প্রকাশ করা হয়। অধ্যাপক আখতার দিল্লির জামিয়া মিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস্তু বিভাগের প্রধান।