সীতাকুন্ডে গলায় ফাঁস খেয়ে গৃহবধুর মৃত্যু

নিজস্ব সংবাদদাতা ।।

সীতাকুন্ডে গলায় ফাঁস খেয়ে গৃহবধুর মৃত্যু
সীতাকুন্ডে গলায় ফাঁস খেয়ে গৃহবধুর মৃত্যু

চট্টগ্রামের সীতাকুন্ডে গলায় ফাঁস খেয়ে চন্দনা রানী সরকার (২৫) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। বুধবার বিকালে উপজেলার বার আউলিয়া বত্তার পাড়া এলাকা থেকে মডেল থানা পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করেন বলে বিষয়টি নিশ্চিত করেন সীতাকুন্ড মডেল থানার উপ-পরিদর্শক এস.এম জুলফিকার হোসেন। ফাঁস খাওয়া গৃহবধু বরগুনা জেলার শেরপুর থানার জয় কুমার সরকারের স্ত্রী। দীর্ঘদিন স্বামীর কাজে সুবাধে তারা স্বপরিবারে উপজেলার বারআউলিয়া আবুল কাসেমের ভাড়া ঘরে বসবাস করতেন।
জানা যায়,উপজেলার সোনাইছড়ি বারআউলিয়া বত্তার পাড়া এলাকায় আবুল কাসেমের ভাড়া ঘরে বসবাস করতেন স্বামীসহ চন্দ্রনা। গত কয়েকদিন আগে থেকে স্বামীর সাথে একটু একটু করে ঝগড়া বিবাদে জড়িয়ে পড়েন চন্দনা। এরই সূত্রধরে বুধবার স্বামী কাজ শেষে বাড়ি ফিরে দরজা খুলার জন্য স্ত্রীকে ডাকাডাকি করেন। দীর্ঘক্ষণ ডাকাডাকির পর স্ত্রীর কোন সাড়া শব্দ না পেয়ে দরজা ভেঙ্গে দেখে ফ্যানের সাথে ঝুলানো স্ত্রীর লাশ। পরে পাশবত্বীদের ডেকে বিষয়টি দেখালে উনারা স্থানীয় প্রতিনিধির মাধ্যামে পুলিশকে বিষয়টি অবগত করে। পরে পুলিশ গিয়ে গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশটি উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্টের জন্য মর্গে প্রেরণ করেন।
সীতাকুন্ড মডেল থানার ওসি মো.দেলওয়ার হোসেন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,‘গৃহবধুর লাশটি উদ্ধার করে আমরা মর্গে প্রেরণ করেছি,সুরতহাল রিপোর্ট হাতে আসলে মৃত্যুর সঠিক ঘটনা জানতে পারবো।’