সীতাকুণ্ডের রাব্বি পা দিয়ে লিখে পেল জিপিএ-৫

সীতাকুণ্ডের রাব্বি পা দিয়ে লিখে পেল জিপিএ-৫
সীতাকুণ্ডের রাব্বি পা দিয়ে লিখে পেল জিপিএ-৫

পোস্টকার্ড ডেস্ক।। 

পা দিয়ে লিখে  চট্টগ্রাম বোর্ডের এবারের এসএসসি পরীক্ষায় বিজ্ঞান বিভাগ থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে সীতাকুণ্ড ভাটিয়ারী  হাজী তোবারাক আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্র রফিকুল ইসলাম রাব্বি। 

২০১৬ সালে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে বিদ্যুৎস্পর্শে  দুটি হাত কাটা যাওয়া রাব্বি ভাটিয়ারী ইউনিয়নের বজলুর রহমানের ছেলে।

রাব্বির বাবা বজলুর রহমান বলেন, আল্লাহর দরবারে লাখো শুকরিয়া। আমার ছেলের মনোবল , কঠোর পরিশ্রম এবং  শিক্ষকদের ভালোবাসার ফসল তার এই কৃতিত্ব। তাছাড়া  মানুষের দোয়া ও ভালোবাসা আমার ছেলের সঙ্গে ছিল ।

রাব্বি বলেন , আমি যে শারীরিক প্রতিবন্ধী সেটা কখনো আমি চিন্তা করিনি। আমার মনোবল সব সময় শক্ত ছিল। যার কারণে মানুষের দোয়া ও ভালোবাসায় আমি ভালো রেজাল্ট করেছি। ভবিষ্যতে শিক্ষাজীবন শেষ করে শিক্ষক হওয়ার ইচ্ছে রাব্বির। 

ভাটিয়ারী হাজী তোবারক আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক কান্তি লাল আচার্য্য বলেন, শারীরিক প্রতিবন্ধী হওয়ার পরেও রাব্বি অন্যান্য শিক্ষার্থীদের চেয়ে ভালো ফলাফল করায় আমরা মুগ্ধ। সে জীবনে অনেক বড় হোক এই প্রত্যাশাই করি। রাব্বির মনোবল দেখে কখনো মনে হতো না সে শারীরিক প্রতিবন্ধী। সে অত্যন্ত মেধাবী। তার মেধা, মনোবল ও মানুষের দোয়ার কারণে আজ সে এ প্লাস পেয়েছে। তাই আমি বিত্তবানদের অনুরোধ জানাবো  রাব্বির পড়ালেখায় সহযোগিতা যেন এগিয়ে আসেন।


হাজী তোবারক আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটির সভাপতি রবি চন্দ্র দাশ  বলেন, শুধু মনোবল আর অদম্য ইচ্ছাশক্তিই তাকে এনে দিয়েছে সুস্থ ও স্বাভাবিক শিক্ষার্থীদের মতোই সাফল্য। 

তিনি মনে করেন, পা দিয়ে লিখে এসএসসিতে জিপিএ-৫ পাওয়ায় বাবা-মা, শিক্ষকসহ স্থানীয়দের মুখ উজ্জ্বল করেছে রাব্বি। রাব্বি'র সাহায্যে সবাইকে এগিয়ে আসার আহবান জানান তিনি। 

খালেদ / পোস্টকার্ড ;